গ্যাজেটের সাহায্যে হোমকে বানিয়ে ফেলুন “সুপার হোম”!

0
533
গ্যাজেটের সাহায্যেই যদি ঘরের সব কিছু নিয়ন্ত্রন করা যায় তাহলে কেমন হয়?

দৈনন্দিন শত সহস্র কাজের শেষে একটু শান্তির আসায় ঘরে ফিরে যদি দেখেন ঘরের অবস্থা আপনার অবস্থার চেয়েও কাহিল, তাহলে মনের দুঃখে চোখে পানি এসে যাওয়াও অস্বাভাবিক কিছু নয়! শান্তির নীড় যেন অশান্তির নীড়ে পরিণত না হয় সেই ব্যবস্থা করতে হলে পড়তে হবে পুরো আর্টিকেলটি।

ডোরেমনের যুগে বড় হওয়া এই প্রজন্মের কাছে গ্যাজেট কথাটির মানেই হল সব সমস্যার সমাধান জাতীয় কিছু একটা। এই গ্যাজেটের সাহায্যেই যদি ঘরের সব কিছু নিয়ন্ত্রন করা যায় তাহলে কেমন হয়? এমন কিছু গ্যাজেটের খোঁজ-খবর নিয়েই আমাদের আজকের আয়োজন।

গুগল হোম

মনে করুন এটি আপনার একান্ত বিশ্বস্ত প্রহরী। গুগল হোম যন্ত্রটিকে বসিয়ে দিন ঘরের ঠিক মাঝখানে অথবা যেখানে আপনি বেশি ঘোরাফেরা করে সেখানে আর প্রতিনিয়ত তাকে দিতে থাকুন একের পর এক আদেশ।

গান শোনানো, ক্যালেন্ডার ম্যানেজ করা, স্বয়ংক্রিয়ভাবে টেক্সটের উত্তর দেয়া এবং আপনার যেকোনো প্রশ্নের উত্তর গুগল থেকে খুঁজে বেরার দায়িত্ব একাই পালন করবে গুগল হোম। আপনাকে শুধু ব্যবহার করতে হবে নিজের কণ্ঠস্বর। ফোন থেকে স্ক্যান্ডাল ছড়িয়ে পড়ার ঝামেলাও দূর করবে গুগল হোম!

ফ্যামিলি হাব রেফিজারেটর

ধরা যাক, আপনি রান্না করতে রান্না ঘরে ঢুকেছেন। ১০-১২ জনের জন্য খাবার বানাতে হবে আপনাকে। কখনও এমন হয়েছে কি খাবারের মধ্যে লবণের পরে ডিম দেবেন না আটা দেবেন তাই ভুলে গেছেন! আমাদের অনেকের সাথেই কিন্তু এমনটা হয়।

ফ্যামিলি হাব রেফ্রারেটরের এই ফ্যান্সি ফ্রিজটিকে সহজেই যুক্ত করতে পারবেন আপনার স্মার্টফোনের সাথে। এবার আগে থেকে স্মার্টফোনে লিখে রাখা উপকরন ও প্রস্তুত প্রণালীসহ কোন জিনিসটি কথায় রেখেছেন সবই দেখিয়ে দেবে ফ্রিজ! চাইলেই আপনি ফ্রিজের স্ক্রিনটিকে একটি বিশাল আকৃতির ট্যাবে পরিণত করে ফেলতে পারবেন। এছাড়া ফ্রিজের কাছ থেকে গান শোনা, মুভি দেখা বা টিভি দেখার মতো সুবিধাগুলো তো আপনি পেতেই পারেন!

আপনার বাসায় কে আসলো আর গেল ২৪/৭ তার খোঁজ-খবর রাখতে হলে নিশ্চিন্তে ভরসা করতে পারেন নেস্টের এই ক্যামটির উপর
আপনার বাসায় কে আসলো আর গেল ২৪/৭ তার খোঁজ-খবর রাখতে হলে নিশ্চিন্তে ভরসা করতে পারেন নেস্টের এই ক্যামটির উপর

দরজার বাইরে নেস্ট ক্যাম

আপনার বাসায় কে আসলো আর গেল ২৪/৭ তার খোঁজ-খবর রাখতে হলে নিশ্চিন্তে ভরসা করতে পারেন নেস্টের এই ক্যামটির উপর। স্মার্টফোনের সংযুক্ত করে ফেলুন ক্যামের নেটওয়ার্ক। রাতে বা দিনে যখনই আপনার ঘরের আশপাশ দিয়ে কেউ যাতায়াত করবে, তখনই আপনি নোটিফিকেশন পেয়ে যাবেন মোবাইলের স্ক্রিনে। রাতের নিরাপত্তার জন্য বা মনের শান্তির জন্য এর চেয়ে নির্ভরযোগ্য গ্যাজেট আর কিছু হতে পারে না।

ওয়াইফাই থারমোস্ট্যাট

ওয়াইফাইয়ের সাথে সংযুক্ত এই থারমোস্ট্যাটটি আপনি আপনার দৈনন্দিন প্ল্যান ও শিডিউল ঠিক রাখার কাজে ব্যবহার করতে পারেন। আপনার স্মার্টফোনের লোকেশন দেখে সে বুঝে নেবে আপনি ঘরে আছেন নাকি বাইরে আছেন। আর তার ভিত্তিতে সময়ে সময়ে জানিয়ে দেবে কখন আপনার কি করা প্রয়োজন। সাধারণ কাজকর্মের জন্য কালো ও প্রোফেশনাল ব্যবহারের জন্য সাদা-দুইটি ভিন্ন ভার্শনে বের করা হয়েছে থারমোস্ট্যাটটি।

প্লাম পডস

ওয়াইফাই সংক্রান্ত ঝামেলা এড়াতে দারুণ কাজ করে এই প্লাগ ইনগুলো। ঘরের কোথাও যদি ওয়াইফাই এর কানেকশন ভালো না পান তাহলে সেখানে সেট করে নিন একটি পড। পডটি নিজ উদ্যোগে ওয়াইফাইয়ের জ্যাম ছাড়িয়ে আপনাকে দেবে নিরবিচ্ছিন্ন ওয়াইফাইয়ের নিশ্চয়তা!

তথ্যসূত্রঃ ইনস্টাইল ডট কম

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here