ঘরের কাজে বরফের নানা ব্যবহার!

রূপচর্চা, শীতল পানীয় বা ব্যথা পেলেই যে কেবল বরফ ব্যবহার হয়, তা নয়। ঘরের নানা কাজে ব্যবহার করা যায় বরফ।

যে কোনো ঋতুতেই গ্রীষ্ম হোক বা শীত, ত্বকের সুরক্ষায় বরফ বেশ কার্যকরী একটি উপাদান। নিয়মিত বরফের ব্যবহারে আপনার ত্বক থাকবে সুস্থ এবং প্রাণবন্ত। এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াও নেই। তাই নিশ্চিন্তে প্রতিদিন ত্বকে এক টুকরা বরফ ব্যবহার করুন। তাতে ধীরে ধীরে রুক্ষ ত্বকে লাবণ্য ফিরে আসবে। রূপচর্চা, শীতল পানীয় বা ব্যথা পেলেই যে কেবল বরফ ব্যবহার হয়, তা নয়। ঘরের নানা কাজে ব্যবহার করা যায় বরফ। জেনে নিন সেসব—

কার্পেটের ক্ষত অপসারণ

কার্পেটের ওপর পায়াওয়ালা সোফা ও টেবিল রাখলে সেসব স্থানে গর্ত দেখা দেয়। খুব সহজেই কার্পেটের গর্ত বা ক্ষত দূর করার জন্য সেসব স্থানে একটি করে বরফের টুকরা রেখে দিন। বরফ গলে গেলে আঙুল বা নরম ব্রাশ দিয়ে কার্পেটের আঁশগুলোকে উপরের দিকে তুলে দিন। বরফ ভেজা অংশগুলো শুকিয়ে গেলে বোঝাই যাবে না যে, কার্পেটের গায়ে কোনো গর্ত ছিল।

একটি পাতলা কাপড়ে বরফের টুকরা পেঁচিয়ে সেসব ভাঁজে বুলিয়ে নিন।
একটি পাতলা কাপড়ে বরফের টুকরা পেঁচিয়ে সেসব ভাঁজে বুলিয়ে নিন।

ভাঁজহীন কাপড়

ইস্ত্রি করা কাপড় ভাঁজ করে আলমারিতে তুলে রাখার পর ভাঁজে ভাঁজে ইস্ত্রি নষ্ট হয়ে যায়। একটি পাতলা কাপড়ে বরফের টুকরা পেঁচিয়ে সেসব ভাঁজে বুলিয়ে নিন। এর পর ভাঁজ পড়া দাগের ওপর ইস্ত্রি করে নিলেই তা আর বোঝা যাবে না।

কাপড়ের দাগ তুলতে

চা খেতে গিয়ে শার্টে পড়েছে? চিন্তার কিছু নেই। পানি দিয়ে না ধুয়ে এক টুকরো বরফ নিয়ে চায়ের দাগের ওপর চেপে ধরুন। কয়েক সেকেন্ড রাখার পর পাতলা কাপড় দিয়ে মুছে নিন। এভাবে পুনরায় করুন।

কাপড় থেকে চুইংগাম তুলতে

পরিধেয় কাপড়, কার্পেট বা টেবিল ক্লথে চুইংগাম লাগলে সরাসরি সেসব স্থানে বরফ ঘষতে থাকুন, যতক্ষণ না পর্যন্ত চুইংগাম শক্ত হয়ে যায়। এর পর চুইংগাম শক্ত হয়ে এলে চামচের পেছনের অংশ দিয়ে তুলে ফেলুন। কাপড় থেকে মোম তুলতেও এ পদ্ধতি ব্যবহার করতে পারেন।

সিরামিক ও কাঁচ পরিষ্কার

লম্বাকৃতির সিরামিক ও কাচের কফিপট, ফুলদানি, বোতল, জার ইত্যাদি পরিষ্কার করতে এসব পাত্রের ভেতর বরফের টুকরা ও লবণ দিন। ১ মিনিট পাত্রটিকে চক্রাকারে ঘুরিয়ে নিলে পাত্রের তলানির জমাট ময়লা কেটে যাবে। এর পর স্বাভাবিক নিয়মে ধুয়ে ফেলুন।

প্রাকৃতিক এয়ারকন্ডিশনার

একটি মাঝারি পাত্রে বেশি পরিমাণে বরফের টুকরা নিয়ে টেবিলের ওপর রেখে দিন। এমন স্থানে রাখুন, যেখানে ফ্যানের বাতাস বরফ ছুঁয়ে যাবে। এতে ঘরে ঠাণ্ডা আবহ কাজ করবে। বরফ গলে গেলে পানিটি আবার ফ্রিজে রেখে জমিয়ে নেয়া যাবে।

সূত্রঃ বণিক বার্তা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here